শনিবার, ১১ মার্চ, ২০১৭

সন্ত্রাস ও দুর্নীতিমুক্ত সমাজ গঠনে ছাত্রদেরকে এগিয়ে আসতে হবে: মাওলানা আহমদ আবদুল কাইয়ূম

দেবিদ্বার সংবাদদাতা: ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর কেন্দ্রীয় প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক মাওলানা আহমদ আবদুল কাইয়ূম বলেছেন, সন্ত্রাস ও দুর্নীতি সমাজের রন্দ্রে রন্দ্রে ঢুকে পড়েছে। ছাত্র সমাজের গৌরবোজ্জ্বল ইতিহাস আজ কলঙ্কিত। একটি মহল ছাত্রসমাজকে নিজেদের স্বার্থে লাঠিয়াল বাহিনী হিসেবে ব্যবহার করছে। এ অবস্থা থেকে বের হয়ে একটি আদর্শিক পরিবর্তনের আন্দোলন গড়ে তুলতে হবে। আত্মশুদ্ধিমূলক ইসলামী সমাজব্যবস্থা প্রবর্তন ছাড়া মাবনবতার কাঙ্খিত মুক্তি সম্ভব নয়।

গতকাল (শুক্রবার) বিকেলে দেবিদ্বারের ছোট আলমপুর ইব্রাহিমিয়া কারিমিয়া মাদরাসা মিলনায়তনে ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলনের থানা সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন। থানা সভাপতি মুহাম্মদ বাছির উদ্দিনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সম্মেলনের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন বিশিষ্ট ব্যবসায়ী ও সমাজসেবক  কুমিল্লা-৪ এর সম্ভাব্য হাতপাখার এমপি প্রার্থী আলহাজ্ব আমিরুল ইসলাম সরকার। প্রধান বক্তা ছিলেন ইশা ছাত্র আন্দোলনের কুমিল্লা উত্তর জেলা সভাপতি ছাত্রনেতা মুহা. হুমায়ূন কবির। অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন মুহাম্মদ আব্দুল করীম, মুফতি আশরাফুল আলম ওবায়দী, মোহাম্মদ শাহজাহান, মোহাম্মদ রুহুল আমীন, এটিএম সাইফুল ইসলাম, মাওলানা রাশেদুল ইসলাম রহমতপুরি, হাফেজ মাওলানা আবুল হাসান, ডা. মুহসিন আলম, মাওলানা নুরুল ইসলাম ওসমানী প্রমুখ। সঞ্চালনায় ছিলেন মুহাম্মদ রাকিবুল হাসান। সম্মেলনে জেলা ও থানা নেতৃবন্দ, সুধীমন্ডলী বক্তব্য রাখেন। সম্মেলন শেষে মুহাম্মদ শামীমকে সভাপতি, ফয়সাল আহমদকে সহ-সভাপতি এবং মুহাম্মদ আনিসুর রহমানকে সাধারণ সম্পাদক দেবিদ্বার থানা কমিটি ঘোষণা করা হয়।

তিনি বলেন, সামাজিক ও নৈতিক মূল্যবোধের চরম অবক্ষয়ে জর্জরিত জাতিকে বাঁচাতে হলে রাসূল সা.-এর অনুপম আদর্শের রাষ্ট্র ব্যবস্থা প্রবর্তন করতে হবে। নৈতিকতা বিবর্জিত জাতিকে ইসলামের সুমহান আদর্শে ফিরিয়ে আনতে হলে ইসলামী অনুশাসনের বিকল্প নেই। তিনি বলেন, জাতিকে পৌত্তলিকতায় ফিরিয়ে জাতীয় ঈদগাহঘেঁষে লেডি মূর্তি স্থাপন করা হয়েছে । এই মূর্তি অপসারণ না করলে কঠোর আন্দোলনের হুশিয়ারী উচ্চারণ করেন তিনি। মাওলানা আহমদ আবদুল কাইয়ূম বলেন, কুমিল্লা বিভাগকে কুমিল্লার নামেই দিতে হবে। ময়নামতি নামে কুমিল্লা বিভাগ মেনে নেয়া হবে। প্রয়োজনে কঠোর আন্দোলন গড়ে তোলা হবে।